রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ০৭:০৯ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম
স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়া,স্ত্রীর আত্মহত্যা ব্র্যাক ব্যাংকের হাই ভ্যালু প্রিমিয়াম সেভারস অ্যাকাউন্ট হোল্ডারদের জন্য ইউনিমার্ট-এ থাকছে বিশেষ সুবিধা প্রান গেল মোটরসাইকেল চালকের, আহত-২ ফরিদপুরের বিভিন্ন আবাসিক হোটেল থেকে ২০ নারী-পুরুষ আটক ময়মনসিংহে জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক রাহাত খানের নেতৃত্বে অসহায়দের মাঝে খাবার বিতরন ঝুঁকিপূর্ণ ব্রিজ ভেঙে যাত্রীবাহী গাড়ি খালে ১০ জনের মরদেহ উদ্ধার রায়পুরে অপহৃত কিশোরী উদ্ধার, গ্রেফতার ২ গৌরীপুরে পিকআপ- সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে ১ জন নিহত নিজস্ব প্রতিবেদক ভোর হতেই লক্ষ্মীপুরে ঝুম বৃষ্টি ! যুবদল নেতাকে যুবলীগের সভাপতি ঘোষণা, কমিটি বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ

লক্ষ্মীপুরে  অবাধে ভারতীয় চিনি আসছে, প্রশাসনের নেই বাজার মনিটরিং 

  • আপডেট সময় শুক্রবার, ৭ জুন, ২০২৪, ৮.১৫ পিএম
  • ১৪ বার পড়া হয়েছে

অ আ আবীর আকাশ, লক্ষ্মীপুরঃ-রাতের আধারে চোরাইপথে লক্ষ্মীপুরে আসছে ভারতীয় চিনির চোরাচালান।গতকাল দিবাগত রাত ১২ টার দিকে পৌর শহরের থানা রোডে একটি কভার ভ্যানে করে আনা চিনি আল-আমিন স্টোর ও হরি নারায়ণ সন্স গোডাউনে নামানো হয়েছে। দেশীয় ইগলু কোম্পানির মোড়কে আনা হয় এ চিনি।

এসব চিনি দেশি ব্র্যান্ডের বিভিন্ন কোম্পানির মোড়কে বস্তায় ভরে আনা হয়। কাভার্ডভ্যান ড্রাইভার ও ব্যবসায়ী আল-আমিনের কাছে চিনির চালান দেখতে চাইলে শুধুমাত্র একটি ট্রান্সপোর্ট চালান ব্যতিত কোম্পানি থেকে দেওয়া ভারতীয় চিনি মালামালের কোনো চালান দেখাতে পারেন নি তারা। এসময় ড্রাইভার বলেন, নারায়ণগঞ্জ থেকে অন্য ড্রাইভার কুমিল্লা পর্যন্ত এনেছে, কুমিল্লা থেকে তিনি এনেছেন।

স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, ভারত থেকে প্রতিদিন চিনি চোরাইপথে লক্ষ্মীপুরে ঢুকছে। তাদের অভিযোগ, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাসহ (ওসি) প্রশাসনকে ‘ম্যানেজ’ করে এসব চোরাকারবারি চালিয়ে যাচ্ছে আল-আমিন স্টোর ও হরি নারায়ণ এন্ড সন্সহ কয়েকটি প্রতিষ্ঠান। দেশ থেকে শুল্ক ফাঁকি মাধ্যমে আনা হচ্ছে এসব চিনি। সাধারণ ভোক্তা ছাড়াও বিভিন্ন, হোটেল, রেস্টুরেন্ট ও ছোট-বড় বেকারিতে বিক্রি করা হচ্ছে ভারতের নিম্নমানের এই চিনি।

বিষয়টি আল-আমিন স্টোরের মালিক আল-আমিনের কাছে জানতে চাইলে ক্যামেরা দেখে পালিয়ে যান তিনি। মুঠোফোনে জানতে চাইলে হরি নারায়ণ সন্সের মালিক শংকর মজুমদার সাংবাদিক আবীর আকাশকে বলেন, বিভিন্ন স্থান থেকে আমাদের মালামাল আসে। এ বিষয়ে পরে কথা বলবো।

প্রশাসনের নীরবতায় নিয়মিত ঢুকছে চোরাচালান, এতে প্রশাসন জড়িত কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন সচেতন মহলের। এসময় উপস্থিত ছিলেন সাংবাদিক, বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সহ-সভাপতি আজিজুর রহমান এবং গোয়েন্দা সংস্থার কর্মকর্তারা। এসময় ব্যবসায়ী নেতাকর্মীরা পুলিশ ও সাংবাদিকদের ম্যানেজ করার জন্য চেষ্টা করেন।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাইফুদ্দিন আনোয়ার বলেন, পুলিশকে ‘ম্যানেজ’ করার বিষয়ে কিছু জানেন না তিনি।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

themesbazsongbadsara1
© All rights reserved © 2022 songbadsarakkhon.com
Theme Download From ThemesBazar.Com